বঙ্গবন্ধুর পরিবারকে নিয়ে উদ্ধত্যপূর্ণ বক্তব্য প্রদানকারীদের ছাড় দেওয়া হবে না

25
খুলনা ব্যুরো 
শনিবার সন্ধ্যায় নগরীর শঙ্খ মার্কেটস্থ দলীয় কার্যালয় থেকে খুলনা মহানগর যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতৃবৃন্দের নেতৃত্বে বঙ্গবন্ধু এবং তাঁর পরিবারের সদস্যদের নিয়ে উদ্ধত্যপূর্ণ বক্তব্য প্রদানকারীদের কোন অবস্থাতেই  ছাড় দেওয়া হবে না। বঙ্গবন্ধু রহমানের দৌহিত্র, বাগেরহাট-০১ আসনের সংসদ সদস্য শেখ হেলাল উদ্দীন এমপি’র পুত্র ও বাগেরহাট ০২ আসনের সংসদ সদস্য শেখ সারহান নাসের তন্ময়ের নামে উদ্ধত্যপূর্ণ বক্তব্য প্রদানের প্রতিবাদে নগরীতে  বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। বিক্ষোভ মিছিল শুরু হয়ে নগরীর প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে দলীয় কার্যালয়ে এসে শেষ হয়। মিছিল শেষে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। বিক্ষোভ সমাবেশ শেষে ভোলা জেলার জনৈক মাঈনুল হোসেন বিপ্লব এর কুশপুত্তলিকা দাহ করা হয়। বিক্ষোভ সমাবেশ খুলনা মহানগর যুবলীগের আহবায়ক সফিকুর রহমান পলাশের সভাপতিত্বে ও নগর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান রাসেল এর পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন, যুবনেতা, এস এম হাফিজুর রহমান হাফিজ, কামরুল ইসলাম, আব্দুল কাদের শেখ, কাজী কামাল হোসেন, শওকত হোসেন, অভিজিৎ চক্রবর্তী দেবু, কবির পাঠান, তাজুল ইসলাম, কে এম শাহীন হাসান, ইয়াসিন আরাফাত, সাবেক ছাত্রনেতা মুশফিকুর রহমান সাগর, বিপুল মজুমদার, অভিজিৎ পাল,  ইব্রাহিম হোসেন তপু, আনিসুর রহমান, রকিবুল ইসলাম, ইকবাল হোসেন, সাকিব হাওলাদার, জামিল হোসেন সোহাগ, লাবু আহম্মেদ, ছাত্রলীগ নেতা সোহেল বিশ্বাস, আসাদুজ্জামান বাবু, ইখতিয়ার মোল্লা, জব্বার আলী হীরা, তানজির রহমান উষান, ঝলক বিশ্বাস,জহির আব্বাস, ইয়াসিন আলী, রুবায়েদ ইসলাম জুয়েল, পাপ্পু সরকার,লাবিব হোসেন মিথুন, মোঃ কামাল হোসেন, ইমাজ উদ্দীন রিপন, শিকদার রাসেল, শেখ সাকিব, কামরুজ্জামান ইমরান, সোহান হোসেন শাওন, আরাফাত হোসেন মিঞা, রেদওয়ান ইসলাম মোড়ল, তায়েজুল ইসলাম তাজ, ইবনুল হাসান, আব্দুল কাদের সৈকত, বায়জিদ সিনহা, আসাদুজ্জামান সানি, আহানাফ অর্পন, জোয়েব সিদ্দিকী, সাগর মিত্র চন্ময়, মোঃ সাইফুল ইসলাম, বাতেন শিকদার, পারভেজ শিকদার, মসিউর রহমান বাদশা, জিসান আরাফাত, শঙ্কর কুন্ডু, রবিউল ইসলাম প্রিন্স, সৈকত দাস, জোবায়ের হোসেন এশা, জনি বসু, নিশাত ফেরদৌস অনি, রুম্মান আহম্মেদ, আতিকুর রহমান সোহাগ প্রমূখ। সমাবেশে বক্তারা বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তার পরিবারের সদস্যদের নিয়ে উদ্ধত্যপূর্ণ বক্তব্য প্রদানকারীদের কোন ছাড় দেওয়া হবে না।