বাংলাদেশ ছাত্র অধিকার পরিষদ এবং সুস্থ ধারার রাজনীতি : তামান্না ফেরদৌস শিখা

14
১৯৭১ সালের স্বাধীনতা যুদ্ধের পর থেকে সময়ের বিবর্তনে বাঙালি ২ ভাগে বিভক্ত হয়েছে। এক পক্ষ বেছে নিয়েছে অাওয়ামিলিগ এর রাজনীতি অন্য পক্ষ বেছে নিয়েছে বিএনপি এর রাজনীতি। অন্যান্য অসংখ্য দল থাকলেও মূল ধারার রাজনীতিতে এই ২ দলই এখনও পর্যন্ত এগিয়ে।
একেক দলের উদ্দেশ্য এবং লক্ষ্য ভিন্ন হলেও তারা যে যখন ক্ষমতায় এসেছে সুস্থ ধারার রাজনীতি কোনো পক্ষই ধরে রাখতে পারেনি। প্রত্যেক পক্ষই নিজের ইচ্ছা মতো চলেছে। না ছিলো জবাবদিহিতা না ছিলো সুষ্ঠু আইনের প্রয়োগ। যে দল ক্ষমতায় এসেছে তার বিপরীত দলকে দৌড়ানির উপর রেখেছে। হত্যা, গুম, খুন, ছিনতাই কখনও কখনও বেড়েছে বটে তবে কমেনি।
বন্ধ হয়নি মাদক ব্যবসা। বন্ধ হয়নি নিয়োগে অনিয়ম। বন্ধ হয়নি গরিবের উপর ধনীর অত্যাচার। গরিব হয়েছে আরও গরিব, ধনী হয়েছে আরও ধনী। মোবাইল ফোন, গাড়ি এগুলো কি উন্নয়ন? বিশ্বের উন্নয়নের সাথে এ উন্নয়ন তো হতেই হতো!  ধনী যখন আরো ধনী হচ্ছে তখন রাস্তায় প্রাইভেট গাড়ির সংখ্যা তো বাড়বেই!!!এটা কি উন্নয়ন?
রাজনীতি সবাই করেছে, ক্ষমতায় সবাই এসেছে কিন্তু জনগণের চিন্তা করেনি কেউ।  আপনি বিএনপি সমর্থক? নিজের বুকে হাত দিয়ে বলুন যে আপনার নেতা জনগণের জন্য রাজনীতি করেছে? আপনি আওয়ামিলীগ করেন? বুকে হাত দিয়ে বলুন আপনার এরিয়ায় কোনোও হরিবোল লাঞ্ছিত হয়নি?
অন্য দলকে নিয়ে সমালোচনা করতে আসিনি। কিছু কথা স্পষ্ট করে জানাতে এসেছি।  যখন থেকে বুঝতে শিখেছি রাজনীতি কি তখন থেকেই স্বপ্ন দেখতাম নির্বাচনী মাঠে সকল দল প্রচারণার কাজ করবে, একে অপরের ভালো কাজের কম্পিটিশনের মাধ্যমে নিজেদের কাজ ফোকাস করবেন। এক দল আরেক দল কে নির্বাচনের মাঠে দেখে বুকে জড়িয়ে ধরবে। যে জিতবে অন্য দলকে সাথে নিয়ে পার্টি দিবে। সব দায়িত্ব অন্য দলের হাতেই তুলে দিবে। এই যে মিলেমিশে দেশ টা চালানোর স্বপ্ন দেখছি এটাই বাস্তবায়ন করতে চাই। আমরা ক্ষমতায় যাবো এটা অামরা কখনোই ভাবি না। অামরা শুধু সুষ্ঠু ধারার রাজনীতির চর্চা চাই।
আপনারাই আমাদের ক্ষমতাবান বানিয়ে দিয়েছেন। আমরা অতি নগন্য দল। মাত্র নিঃশ্বাস নিতে শুরু করেছি। আমরা ক্ষমতা লোভী নই, আমরা মানুষের পাশে দাঁড়াতে চাই, দাঁড়ানোর সুযোগ চাই। সকলের কাছে দোয়া প্রার্থী। বাংলাদেশ ছাত্র অধিকার পরিষদ যেন পথভ্রস্ট না হয় সেই দোয়া করবেন। একটি কথাই বলতে চাই, “বুজুর্গরা এবার অবসরে যাক, তরুন সমাজের হাতে দেশ রক্ষা পাক।”
তামান্না ফেরদৌস শিখা
যুগ্মঅাহ্বায়ক
বাংলাদেশ ছাত্র অধিকার পরিষদ, খুলনা।