ঝিনাইদাহে করোনা উপসের্গ মৃত্যু ২

13
মোঃ আল আমিন খান, ব্যুরো চিফ খুলনা
বৃহস্পতিবার ভোরে করোনার উপসর্গ নিয়ে এক নিরাপত্তাকর্মী মৃত্যু বরণ করেন। তিনি গত রাতে ঢাকা থেকে এসেছেন। কালীগঞ্জের কাশিপুর গ্রামে তার শ্বশুর বাড়িতে যান। তার জ্বর, সর্দি, কাশি ও শ্বাসসকষ্ট ছিল। উপজেলার চাপরাইল ঘোপ পাড়া গ্রামে তার বাড়ি। অন্যদিকে, আজ সকালে শৈলকুপার কেষ্টপুর গ্রামে করোনার উপসর্গ নিয়ে এক গৃহবধূ ও মারা যান। কালীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. শামিমা শিরিন জানান, ওই ব্যক্তির করোনার উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু হওয়ায় নমুনা সংগ্রহ করে খুলনাতে পাঠানো হবে। রিপোর্ট হাতে পাওয়ার পর যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। শৈলকুপা উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. রাশেদ-আল মামুন জানান, গত এক সপ্তাহ ধরে করোনার উপসর্গ নিয়ে ওই নারী হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন। তার কিছুটা শারীরিক উন্নতি হলে পরিবারের লোকজন বাড়িতে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়। আজ সকাল ৯টার দিকে বাড়িতে নিয়ে যাওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। নিহত ব্যক্তির নমুনা সংগ্রহ করে খুলনাতে পাঠানো হবে বলে জানানো হয়।