খুলনার অলি গলিতে চায়ের দোকানে আড্ডা

25

মোঃ আল আমিন খান, ব্যুরো চিফ খুলনা

শুক্রবার খুলনার বিভিন্ন জায়গাতে সরেজমিনে ঘুরে দেখা যায়, বিভিন্ন গলিতে নতুন করে জন্ম নিছে চায়ের দোকান। দিনের আলোতে বন্ধ থাকলেও কিছু অসাধু চা বিক্রেতা প্রশাসনের চোখে ধূলা দিয়ে চালিয়ে যাচ্ছে তাদের ব্যবসা। খুলনা জেলা প্রশাসক অফিস সূত্রে জানা যায়,  সকল চায়ের দোকান থাকবে বন্ধ থাকবে। জনসমাগম এড়াতে নামানো হলো সেনাবাহিনী। প্রশাসন ও সেনাবাহিনী মেইন সড়ক গুলো টহল দিলেও জনগণের ভীর জমতে দেখা যায় খুলনার কিছু উল্লেখযোগ্য স্থান গুলোতে। স্থান গুলো হলো, শেখপাড়া হাজী ইসমাঈল রোড, ডাইল মিল মোড়, রয়েলের মোড়, পল্লীমঙ্গল এর মোড় সহ বিভিন্ন গলিতে চলছে চা বিক্রী। এখানেই শেষ নয় বেশির ভাগ লোকের মুখে নেয় মাস্ক হাতে নেই কোন হ্যান্ড গ্লোবস। আবার অনেকে একসাথে বসে আড্ডায় মেতেছে।

জনৈক এক ব্যক্তি জানান,   প্রশাসন শুধু মেইন সড়কে টহল দিলে হবে না, দিতে হবে প্রতিটা গলিতে নইলে এই মরণঘাতী করোনা ভাইরাসের হাত থেকে রক্ষা পাওয়া সম্ভব না। ইতিমধ্যে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের বিভিন্ন সতক বাণী থাকলেও মানছে না অনেকেই। এলাকার সচেতন মানুষের একটাই দাবি সন্ধ্যার পরে যেন প্রতিটা গলিতে প্রশাসন সজাগ দৃষ্টি রাখে তাহলেই হয়তো একদিকে বন্ধ হবে আড্ডা অন্যদিকে বন্ধ হবে জনবল।