ফুলতলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে শিশু ডাক্তার উত্তম কুমার দেওয়ান ছুরিকাঘাতে আহত

461

আবু হামজা বাঁধন, ডেক্ম রিপোর্ট

খুলনার ফুলতলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে সোমবার সকাল ১০ টায় শিশু কনসালটেন্ট ডাঃ উত্তম কুমার  দেওয়ানকে ছুরিকাঘাত করে গুরুত্বর জখম করেন উপ সহকারি কমিউনিটি  মেডিকেল অফিসার মহাসিন গাজী (৩৩)। এ ঘটনায় মহাসিন গাজীকে পুলিশ আটক করে।

জানাযায়, ফুলতলার এ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সাবেক কর্মরত স্যাকমো মহাসিন গাজী পূর্ব শত্রুতার জের ধরে  ডাঃ উত্তম কুমার  দেওয়ানের কক্ষে প্রবেশ করে এলোপাতাড়ি ছুরিকাঘাত করে। এসময় আহত ডাঃ উত্তমকে মুমর্ষবস্থায়  খুলনা  মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে  প্রেরণ করা হয়। ঘটনার সাথে সাথে হাসপাতালের স্টাফরা ছুরিসহ মহাসিনকে পালিয়ে যাওয়ার সময় আটক করে রাখে। পরর্বতীতে ঘটনাস্থলে ফুলতলা থানার ওসি তদন্ত উজ্জ্বল দত্ত ও সঙ্গীয়  ফোর্স এসে মহাসিনকে  গ্রেফতার করেন। আটককৃত মহাসিন খুলনার পাইকগাছা কমলাপুর গ্রামের রাজ্জাক গাজীর পূত্র।

উল্লেখ্য, এর আগেও মহাসিন গাজী ডাঃ উত্তম কুমারকে হামলা করেন। পরবর্তীতে তাঁকে নড়াইল  সদর উপস্বাস্থ্য কেন্দ্রে বদলি করা হয়। ডাঃ উত্তম কুমারের দূব্যবহারের ফলে ও ফুলতলায় কর্মরত থাকা অবস্থায় উত্তম কুমার নিজের কাছে আসা আগত রোগিদের চিকিৎসা না দিয়ে মহাসিনের কাছে  অতিরিক্ত রোগি দেখানোর জন্য পাঠাতো এমন দাবি করেছেন আটককৃত (স্যাকমো) ডাক্তার মহাসিন গাজী।

ফুলতলা থানার  ওসি মনিরুল ইসলাম জানান, মহাসিন গাজী আমরা আটক করেছি, তাঁর বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের টিএইচও ডাঃ কামাল  হোসেন জানান, আমরা ঘটনার সাথে সাথেই আহত ডাক্তারকে এ্যাম্বুলেন্সে খুলনা মেডিকেলে পাঠাই এবং মহাসিন গাজীকে হাসপাতালের একটি কক্ষে আটকে রাখি।

খুলনার সিভিল সার্জন ডাঃ সুজাত আহমদ মুঠোফোনে জানান, ডাঃ উত্তম কুমার দেওয়ানকে খুমেক হাসপাতালে দেখে আসছি। বিস্তারিত বিষয় এখন পর্যন্ত আমার জানা নাই। পরবর্তীতে বিস্তারিত আপনাদের জানাব।