ফুলতলার ভৈরব নদ থেকে কিশোরের লাশ উদ্ধারঃ গ্রেফতার ৪

875
মোঃ আলামিন খান / ইমরান  মোল্যা
আজ সোমবার সকালে  ভৈরব নদ খুলনার ফুলতলার খানজাহানপুর এলাকা থেকে ইয়াসিন আরাফাত (১০) কিশোরের লাশ উদ্ধার করে থানা পুলিশ। এ সময় ইয়াসিন আরাফাত এর ডান পা মোটা রশি দিয়ে নদীর মধ্যে খুটার সাথে বাঁধা, বুকে কলা গাছের ছোটা রশি দিয়ে বাঁধা ছিল। সে খানজাহানপুর গ্রামের  শাহানা বেগমের পালিত পুত্র এবং পায়গ্রাম কসবা কাজী আবু মোকাররম মাদ্রাসার চতুর্থ শ্রেণির ছাত্র ছিলো।
পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গতকাল রোববার বেলা ১১টার দিকে পার্শ্ববর্তী জাহাঙ্গীর বিশ্বাসের পুত্র রাজ ও আরাফাতসহ ৪/৫জন কিশোর ভৈরব নদে গোসল করতে যায়। কিন্তু পরে আরাফাত আর বাড়িতে ফিরে আসেনি। সোমবার সকালের দিকে এলাকাবাসী ভৈরব নদে লাশ ভাসতে দেখে পুলিশকে খবর দেয়। পরে পুলিশ গিয়ে লাশ উদ্ধার করে।
এলাকাবাসি সূএে জানা যায়, শাহানা বেগম তার জমি ও অর্থ আরাফাতকে হুইল করে দিবে এমন সংবাদে জাহাঙ্গীর বিশ্বাসের সাথে দ্বন্দ চলছিলো। পূর্ব শত্রুতার জের ধরে এ ঘটনা ঘটেছে কিনা পুলিশ সেটি খতিয়ে দেখবে। এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে রাজ বিশ্বাসকে আজ সকালে ঢাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এছাড়া জিজ্ঞাসাবাদের জন্য খানজাহানপুর গ্রামের কাজী আবু মোকারাম দাখিল মাদ্রাসার ছাত্র ওমর ফারুক (১১), তাইহিদ (১০) ও রাব্বি (১২) নামের তিন কিশোরকে আটক করা হয়েছে। তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করার পর ঘটনার মূল কারণ জানা যাবে। লাশ ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়।